রবিবার, ১৯ মে ২০২৪, ০৭:৪৭ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
ভারতে গিয়ে নিখোঁজ আওয়ামী লীগের এমপি মিয়ানমারে রোহিঙ্গা মুসলমানদের ২টি গ্রামে আরাকান আর্মির হামলা ‘কিরগিজস্তানকে আমাদের গভীর উদ্বেগ জানিয়েছি, কোনো বাংলাদেশী শিক্ষার্থী গুরুতর আহত হয়নি’ কালশীতে পুলিশ বক্সে আগুন অটোরিকশা চালকদের স্বেচ্ছাসেবক লীগের র‌্যালি থেকে ফেরার পথে ছুরিকাঘাতে কিশোর নিহত দক্ষিণ এবং দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ায় চরম তাপপ্রবাহ আসন্ন বিপদের ইঙ্গিত দ্বিতীয় ধাপে কোটিপতি প্রার্থী বেড়েছে ৩ গুণ, ঋণগ্রস্ত এক-চতুর্থাংশ: টিআইবি সাড়ে ৪ কোটি টাকার স্বর্ণসহ গ্রেপ্তার শহীদ ২ দিনের রিমান্ডে ‘গ্লোবাল ডিসরাপ্টর্স’ তালিকায় দীপিকা, স্ত্রীর সাফল্যে উচ্ছ্বসিত রণবীর খরচ বাঁচাতে গিয়ে দেশের ক্ষতি করবেন না: প্রধানমন্ত্রী
এরশাদের আসনে ৯ জনের মনোনয়নপত্র দাখিল

এরশাদের আসনে ৯ জনের মনোনয়নপত্র দাখিল

স্বদেশ ডেস্ক:

রংপুর-৩ আসনের উপনির্বাচনে গতকাল সোমবার আওয়ামী লীগ, জাতীয় পার্টি, বিএনপিসহ ৯ জন মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন। এরশাদপুত্র সাদের বিরুদ্ধে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে ভোটযুদ্ধে নেমেছেন তারই আপন চাচাতো ভাই আসিফ। মহানগর জাতীয় পার্টির (জাপা) সাধারণ সম্পাদক ইয়াসির আহমেদ নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিয়েছেন। অন্যদিকে মহানগর জাপা সভাপতি সিটি মেয়র মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফার অভিমান এখনো ভাঙেনি। তিনি সাদ এরশাদের পক্ষে কাজ করবেন না বলে সাংবাদিকদের জানিয়েছেন। অন্যদিকে বিএনপির মহানগরের সহ-সভাপতি কাওছার জামান বাবলা মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন।

সোমবার রিটার্নিং অফিসার ও আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা জিএম শাহাতাব উদ্দিনের কাছে যারা মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন তারা হলেনÑ আওয়ামী লীগ মনোনীত জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট রেজাউল করিম রাজু, জাপার মনোনীত প্রার্থী এরশাদপুত্র রাহগীর আল মাহি সাদ ওরফে সাদ এরশাদ, বিএনপি মনোনীত রিটা রহমান, খেলাফত মজলিসের তৌহিদুর রহমান ম-ল, গণফ্রন্টের কাজী শহিদুল্লাহ, ন্যাশনাল পিপলস পার্টির রংপুর জেলার যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শফিউল আলম এবং বাংলাদেশ কংগ্রেস দলের মোহাম্মদ একরামুল হক মনোনয়নপত্র জমা দেন। এ ছাড়াও স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে এরশাদের ভাতিজা রংপুর জেলা জাতীয় পার্টির সাবেক সদস্য সচিব ও সাবেক সংসদ সদস্য হোসেন মকবুল শাহরিয়ার আসিফ ওরফে আসিফ শাহরিয়ার এবং মহানগর বিএনপির সহসভাপতি কাওছার জামান বাবলা মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন।

রংপুর-৩ আসনে সাদ এরশাদকে প্রার্থী হিসেবে ঘোষণার পর দলের তৃণমূলের নেতাকর্মীদের মাঝে বিরূপ প্রতিক্রিয়া দেখা দেয়। সিটি মেয়র ও মহানগর জাতীয় পার্টির সভাপতি মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফা সাদ এরশাদের বিপক্ষে অবস্থান নিয়ে স্থানীয়দের মধ্য থেকে যে কোনো একজনকে প্রার্থী দেওয়ার আহ্বান জানান। কিন্তু কেন্দ্রীয় সিদ্ধান্তে সাদ এরশাদকেই জাপা প্রার্থী চূড়ান্ত করা হয়। এতে ক্ষুব্ধ হন মোস্তফা। তিনি তার আগের অবস্থান পরিবর্তন না করে বলেন, আমি এই প্রার্থীর হয়ে কাজ করতে পারব না। যারা তাকে মনোনয়ন দিয়েছেন তারা কাজ করবেন। জনগণ ভোট দিলে নির্বাচিত হবেন, না দিলে হবেন না। এটা নিয়ে আমার কোনো মন্তব্য নেই।

এদিকে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন এরশাদের ভাতিজা হোসেন মকবুল শাহরিয়ার আসিফ। আসিফ সাংবাদিকদের বলেন, বহিরাগত সাদ বা যাকেই মনোনয়ন দেওয়া হোক না কেন, আমি জয়ী হব। দলের নেতারা বারবার ভুল করছেন। জাতীয় পার্টির নেতারা তার প্রতি অন্যায় আচরণ করবেন বুঝতে পেরেই তিনি দলীয় মনোনয়ন চাননি। এমনকি জাপার পার্লামেন্টারি বোর্ডেও আবেদন করেননি। তিনি দাবি করেন বেশিরভাগ নেতাকর্মী তার পক্ষে রয়েছে। বিজয় তারই হবে।

অন্যদিকে উপনির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিয়েছেন জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম মহাসচিব ও রংপুর মহানগরের সাধারণ সম্পাদক এসএম ইয়াসির। দুপুরে নগরীর সেন্ট্রাল রোডের জাপা কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে নির্বাচনে অংশ না নেওয়ার ঘোষণা দেন তিনি। এ সময় তিনি বলেন, দল করতে গিয়ে আমি বেশ কয়েকবার মৃত্যুর মুখোমুখি হয়েছি। ভোট করতে চাইনি। সবার অনুরোধ, উৎসাহ ও পরামর্শে নির্বাচনে অংশ নিতে প্রস্তুতি নিয়েছিলাম। কিন্তু এর মধ্যে আমাকে মৃত্যুর হুমকি দেওয়া হয়েছে। আমাকে তারা ভোট করতে দিল না। হয়তো আর দলেও রাখবে না।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন..

© All rights reserved © 2019 shawdeshnews.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
themebashawdesh4547877