শনিবার, ০২ মার্চ ২০২৪, ০৯:৩৯ পূর্বাহ্ন

শিশুর ঘাড়ে আঁচড়, ‘কাটা মাথা’ গুজবে আতংকিত পুরো গ্রাম

শিশুর ঘাড়ে আঁচড়, ‘কাটা মাথা’ গুজবে আতংকিত পুরো গ্রাম

স্বদেশ ডেস্ক:

ময়মনসিংহের ভালুকা উপজেলায় ৮ মাসের শিশুর ঘাড়ে কাটা দাগ দেখে ‘ছেলেধরা’ এসেছে ‘মাথা কেটে’ নিতে; গুজব ছড়ানোর অভিযোগ পাওয়া গেছে। এতে আতংকিত হয়ে পড়েছে পুরো গ্রাম। উপজেলার হবিরবাড়ী ইউনিয়নের জীবন তলাগ্রামে গতকাল শনিবার দুপুরের দিকে ঘটনাটি ঘটে।

আঘাত পাওয়া শিশুর নাম শাওন। তার বাবার নাম রাশেদ। পুলিশ জানিয়েছে, শিশুর গলায় চেইন ছিল। কোনোভাবে সেটা দিয়ে ঘাড়ে কেটে গেছে। কিংবা অসাবধানতাবসত কোনোভাবে ব্লেডের আঘাত পেয়েছে। এমন কোনো বড় ঘটনা ঘটেনি। এটি গুজব ছাড়া আর কিছু না।

অবশ্য গুজব ছড়িয়েছে ওই শিশুর মায়ের কথার কারণে। জানা গেছে, শাওনের মা মানসিকভাবে অসুস্থ। তিনি একেক সময় একেক কথা বলেন। তার সন্তানের গলায় কাটা দাগ কেন জানতে চাইলে তিনি বলেন, কলের পাড়ে তার ছেলেকে এক নারী গলায় ছুরি চালায়। এ সময় তিনি চিৎকার দিলে ওই নারী পালিয়ে যান।

এই কথা আশেপাশের বাসিন্দারা জানতে পারে। পরে পুরো গ্রামে ‘ছেলেধরা’ এসেছে ‘মাথা কেটে’ নিতে গুজব ছড়িয়ে পড়ে।

ভালুকা মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মাইন উদ্দিন বলেন, এতটুকু বাচ্চার গলায় ধারাল ছুরি চালান হলে তার গলা দ্বিখন্ডিত হয়ে যাওয়ার কথা। আমি ঘটনাস্থলে গিয়েছি। জানতে পেরেছি, শিশুর মা অসুস্থ। তিনি বিভিন্ন সময় বিভিন্নরকম কথা বলেন। স্থানীয়রা জানিয়েছেন, এমন কোনো ঘটনা ঘটেনি। তারাও কাউকে পালিয়ে যেতে দেখেননি।

গ্রামবাসীকে আতংকিত না হওয়ার পরামর্শ দিয়ে গুজবে কান না দিতেও অনুরোধ জানান তিনি। এমন কোনো ঘটনা ঘটে থাকলে আইন নিজের হাতে তুলে না নিয়ে পুলিশকে জানানোর আহ্বান জানান ওসি।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন..

© All rights reserved © 2019 shawdeshnews.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
themebashawdesh4547877