মঙ্গলবার, ১৬ Jul ২০২৪, ০৮:৩৫ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
জাবি শিক্ষার্থীদের ওপর ছাত্রলীগের হামলা, আহত অর্ধশত শিক্ষার্থীদের রক্ত ঝরানোর বীরত্বে আওয়ামী শাসকগোষ্ঠী এখন আত্মহারা : মির্জা ফখরুল ঢাবির জরুরি বৈঠকে প্রভোস্ট কমিটির পাঁচ সিদ্ধান্ত হলে ফেরার অনুরোধ প্রত্যাখ্যান, ‘দালাল-দালাল’ স্লোগান মিছিলের ডাক কোটাবিরোধীদের, আহতদের জন্য চাইলেন সহায়তা বিয়েতে কোনো কমতি থাকলে ক্ষমা করে দেবেন: মুকেশ আম্বানি আত্মস্বীকৃত রাজাকারদের বিষয়ে ব্যবস্থা নেবে ছাত্রলীগ: ওবায়দুল কাদের রায়গঞ্জে আসামিকে ধরতে নদীতে ঝাঁপ, পুলিশ কর্মকর্তার মৃত্যু ৩৪ বছর আগে ফিরতে পারলে কোটা আন্দোলনে অংশ নিতাম : রিজভী আইনশৃঙ্খলা ভঙ্গ করলে শক্ত হাতে দমন : ডিএমপি কমিশনার
সৌদি আরবের সঙ্গে বাংলাদেশের হজ চুক্তি বুধবার

সৌদি আরবের সঙ্গে বাংলাদেশের হজ চুক্তি বুধবার

স্বদেশ ডেস্ক: পবিত্র ভূমি মক্কায় অনুষ্ঠিতব্য ২০২০ সালের হজের বিষয়ে বাংলাদেশের সঙ্গে সৌদি আরবের দ্বিপক্ষীয় চুক্তি হবে আগামী বুধবার। এ উপলক্ষে ধর্ম প্রতিমন্ত্রী অ্যাডভোকেট শেখ মো. আবদুল্লাহর নেতৃত্বে ৯ সদস্যের একটি প্রতিনিধিদল আগামীকাল সোমবার সৌদি আরবে আসছেন।

ধর্ম মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, এবারের হজ চুক্তিতে বাংলাদেশি হজযাত্রীর কোটা ২০ হাজার বৃদ্ধি, হজের ব্যয় কমানো, ঢাকা-মদিনা হজ ফ্লাইট ৫০ শতাংশ চালু,সরকারি ব্যবস্থাপনার কোটা ২০ শতাংশ করাসহ হজযাত্রীদের জন্য সহায়ক বেশ কিছু নতুন প্রস্তাব থাকছে।

সূত্র মতে, ওআইসি কনভেনশন অনুসারে মুসলিম জনসংখ্যার প্রতি হাজারে একজন করে হজযাত্রীর কোটা বরাদ্দ দেয় সৌদি সরকার। বাংলাদেশের মুসলিম জনসংখ্যার পুরোনো হিসাব অনুসারে সর্বশেষ চলতি বছর হজযাত্রীর কোটা ১ লাখ ২৭ হাজার ১৯৮ জন দেওয়া হয়েছিল। তবে বাস্তবে হজ পালনে আগ্রহীর সংখ্যা অনেক বেশি হওয়ায় বেসরকারি হজ এজেন্সিগুলো কোটা বৃদ্ধির দাবি জানিয়ে আসছে।

বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর (বিবিএস) তথ্য অনুযায়ী, বাংলাদেশের বর্তমান মুসলিম জনসংখ্যা ১৪ কোটি ৮০ লাখ ৪৩ হাজার। ওআইসির নিয়মানুসারে, এ জনসংখ্যার অনুপাতে এবারের হজ চুক্তিতে এক লাখ ৪৮ হাজার জনের কোটা চাওয়া হবে। এটি অনুমোদিত হলে আগের চেয়ে এবারের কোটায় ২০ হাজার ৮০২ জন বাড়বে।

ধর্ম মন্ত্রণালয়ের আরেকটি সূত্র জানায়, আগামী বছরের হজ চুক্তিতে বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় ৮০ শতাংশ এবং সরকারি ব্যবস্থাপনায় ২০ শতাংশ হজযাত্রী পাঠানোর প্রস্তাব থাকছে। এ ছাড়া বাংলাদেশ থেকে জেদ্দায় ৫০ শতাংশ এবং মদিনায় ৫০ শতাংশ হজ ফ্লাইট চালুর আবেদন করা হচ্ছে।

অতীতের যেকোনো বছরের তুলনায় ২০১৯ সালের হজ সুষ্ঠু ও সুন্দরভাবে সম্পন্ন হয়েছে। হাজিরা নিরাপদে এবং ভালো ব্যবস্থাপনায় হজব্রত পালন করতে পেরেছেন। সেই ধারাবাহিকতা অব্যাহত রাখতে আগামী দিনেও বিশাল পরিকল্পনা নিয়েছে বাংলাদেশ সরকার।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন..

© All rights reserved © 2019 shawdeshnews.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
themebashawdesh4547877