রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৭:১১ পূর্বাহ্ন

পেঁয়াজ রপ্তানিতে ন্যূনতম মূল্যের বিধিনিষেধ ৩ মাস বাড়াল ভারত

পেঁয়াজ রপ্তানিতে ন্যূনতম মূল্যের বিধিনিষেধ ৩ মাস বাড়াল ভারত

স্বদেশ ডেস্ক

নিজেদের দেশে পেঁয়াজের সরবরাহ ও দাম স্বাভাবিক রাখতে পণ্যটির রপ্তানির ওপর ন্যূনতম মূল্যের বিধিনিষেধের সময়সীমা আরও তিন মাস বাড়িয়েছে ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার।

ভারতের ডিরেক্টরেট জেনারেল অব ফরেন ট্রেড বা বৈদেশিক বাণিজ্যবিষয়ক মহাপরিচালকের কার্যালয় গতকাল বৃহস্পতিবার জানিয়েছে, আগামী বছরের ৩১ মার্চ পর্যন্ত প্রতি টন পেঁয়াজের ন্যূনতম রপ্তানিমূল্য ৮০০ ডলারের সিদ্ধান্তটি বলবৎ থাকবে।

ভারতে পেঁয়াজের দাম বেড়ে যাওয়ায় গত ২৯ অক্টোবর প্রতি টন পেঁয়াজের রপ্তানিমূল্য ৮০০ ডলার নির্ধারণ করা হয়। প্রথমে চলতি বছরের ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত এ বিধিনিষেধ দেওয়া হয়। গতকাল সেটি আবার তিন মাস বাড়ানো হয়।

এ-সংক্রান্ত আগের নির্দেশনায় বলা হয়েছে, বিশ্বের যেকোনো দেশেই যেকোনো পরিমাণে পেঁয়াজ রপ্তানি করা যাবে। এ বিষয়ে বাধা নেই। তবে রপ্তানির ক্ষেত্রে প্রতি টন পেঁয়াজে ন্যূনতম ৮০০ ডলার নিতে হবে, এর নিচে নয়। জাহাজে পরিবহন ও বিমার খরচ এ দামের অন্তর্ভুক্ত নয়।

জানা যায়, গত আগস্টে ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার পেঁয়াজ রপ্তানিতে ৪০ শতাংশ শুল্ক আরোপ করেছিল। তখন এ নিয়ে ব্যবসায়ীদের মধ্যে অসন্তোষ দেখা দেয়, এমনকি তাঁরা ধর্মঘটও করেন। এর মধ্যেই ন্যূনতম রপ্তানিমূল্য বেঁধে দেওয়া হয়েছিল।

নতুন করে ন্যূনতম রপ্তানিমূল্যের বিধিনিষেধের সময়সীমা বাড়ানোর বিষয়ে ভারতের দ্য ইকোনমিক টাইমসের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, দেশে পেঁয়াজের পর্যাপ্ত সরবরাহ ও মূল্য নিয়ন্ত্রণে রাখতে সরকার এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

সরকারি তথ্যানুযায়ী, গত ২৯ নভেম্বর ভারতে পেঁয়াজের খুচরা বাজারে প্রতি কেজি পেঁয়াজের দাম ছিল ৫৮ দশমিক ৮৫ রুপি। এক বছর আগে দাম ছিল ২৯ দশমিক ৭৬ রুপি। তার মানে এক বছরের ব্যবধানে দেশটিতে পেঁয়াজের দাম বেড়েছে ৯৪ দশমিক ৩৯ শতাংশ।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন..

© All rights reserved © 2019 shawdeshnews.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
themebashawdesh4547877